image

মাদক ব্যবসায়ীর পরিবারের কাছে জিম্মি গুটা এলাকা

image

 

মহামারী করোনা পরিস্থিতিতে মানুষ যখন অসহাই ঠিক তখনি প্রশাসন ব্যস্ত ছিলো করোনা পরিস্থিতিতে এদেশের জনগনকে সেবা দিতে

আর ঠিক দেশের এ করুন পরিস্থিতিতে জেগে ওঠেছে মাদক ব্যবসায়ীরা , মাদক ব্যবসায়ীদের কারনে ধ্বংস হচ্ছে এ দেশের যুব সমাজ
আর এ মাদকের কারনে দেশে নানা রকম অপরাধের সৃষ্টি হয় 
মাদক সেবন কারি ও মাদক বিক্রিতাদের ছাড় দিচ্ছে না আইনশৃঙ্খলা বাহিনী 

মাদক ব্যবসায়ীরা আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে গ্রেপ্তার হলে আবার আইনের বেড়াজালে বের হয়ে যাচ্ছে এসব মাদক ব্যবসায়ীরা, ফলে মাদক বিক্রিতার সংখ্যা বাড়ছে

মাদক ব্যবসায়ীদের কাছে জিম্মি হয়ে আছে পুরা দেশ  ও এ দেশের যুবসমাজ 

চট্টগ্রামে হাটহাজারী থানাধীন ১৫নং ইউনিয়ন উত্তর বুড়িশ্চর এলাকা জিম্মি হয়ে আছে  কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ী রওশা বেগমের (৩৬) পরিবারের কাছে। 
স্থানীয় সূত্রে যানা যাই বড়িশ্চর এলাকার সাধারণ মানুষ পুরাপুরি ভাবেই জিম্মি হয়ে আছে মাদক ব্যবসায়ী রওশা - ফরিদ দম্পত্তির কাছে 
বড়িশ্চর এলাকায় রওশা ফরিদুলের মাদক বিক্রি বন্ধ করতে চাইলে প্রতিবাদ কারিদের শিকার হতে হয় বিভিন্ন মিথ্যা
 মামলার,


কিছু দিন আগে উক্ত এলাকার কিছু মুরব্বিরা রওশার পরিবার কে মাদক বিক্রিতে বাধা দিলে মাদক ব্যবসায়ী  
রওশা’র পুরো পরিবার সহ তাদের কিছু সহ যোগিরা মিলে  মাদক বিক্রি বাধা দান কারি ৭২ বছর বয়স্ক এক বৃদ্ধা  নারী কে মেরে তার মাঝা/কোমরের হাড় ভেঙে দেয়। 

স্থানীয় সূত্রে আরো যানা যাই বুড়িশ্চর এলাকায় রওশা বেগম  ও তার স্বামী ফরিদুল আলম রওশার ছেলে বাহাদুর (২২)ও মেয়ে জোসনা আক্তার(২৭) সহ রওশা বেগমের পুরা পরিবার এ মাদক ব্যবসার সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত

এর আগে রওশা বেগম (৩৬)মাদক বিক্রির দায়ে হাতে নাতে হাটহাজারী থানা পুলিশের কাছে গ্রেফতার হয়েছে একাদিক বার। 
রওশা বেগম ও তার পরিবারের একাধিক সদস্যদের বিরুদ্ধে চট্টগ্রামের বিভিন্ন থানায় একাধিক মাদক মামলা রয়েছে সে সাথে রয়েছে মারামারি ও সন্ত্রাসী কাযক্রম পরিচালনার মামলা ও যার মামলা নং জি আর হাটহাজারী ২৩৪/১৯ 

রওশা বেগম মাদক বিক্রির দায়ে একাধিক বার জেল হজতে ও গিয়েছেন কিন্ত আইনে বেড়া জালে বের হয়ে আবার ও চালিয়ে যান মাদক ব্যবসা।