image

শেরপুরে ডিবি পরিচয়ে তুলে নিয়ে হত্যার চেষ্টা

image

শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে হারুন অর রশিদ নামের এক ব্যক্তিকে বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে মৃত্যু  নিশ্চিত করে চলে যাওয়ার পর তাকে জীবিত উদ্ধার করে পুলিশ। শনিবার দিবাগত রাত ১১ ঘটিকায় শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার সদর ইউনিয়নের পাইকুড়া মালঝিপাড় গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।উ;দ্ধারকৃত ব্যক্তি ওই গ্রামের মৃত হাবিবুর রহমানের ছেলে ও ৩ সন্তানের জনক।

হারুনের পরিবার ও থানা পুলিশ সুত্রে জানা যায়, শনিবার দিবাগত রাত ১১ঘটিকার দিকে সিএনজি যোগে ৪/৫জন ব্যক্তি ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে জোর পূর্বক হারুনকে তার বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে নালিতাবাড়ী উপজেলার নন্নী আমবাগান গুচ্ছগ্রামের কাছে হাত বেঁধে মুখে স্কচ টেপ মেরে ও উলঙ্গ করে শরীরের নানান স্থানে আঘাত করে মুত্যু নিশ্চিত করে তারা চলে যায়। এর কিছুক্ষণ পর হারুন কোন মতে হামাগুড়ি দিয়ে রাস্তার উপরে আসলে পথচারিরা দেখতে পেয়ে তাকে উদ্ধার করে থানা পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে মারাক্তক ভাবে আহত হওয়া হারুনকে দ্রুত শেরপুর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। বর্তমানে হারুন শেরপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।  

ঝিনাইগাতী থানার ওসি (তদন্ত) সরোয়ার হোসেন জানান, বিষয়টি আমরা খুবই গুরুত্বের সাথে নিয়েছি। তবে হারুন খুবই অসুস্থ থাকায় তার কাছ থেকে তেমন কিছু জানা যাচ্ছেনা। এ ব্যাপারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।