image

একজন সফল ব্যক্তির গল্প

image

অঞ্চলভেদে যেমন মানুষের ভাষা ও সংস্কৃতির পরিবর্তন ঘটে, তেমনি কিছু কিছু অঞ্চল বা এলাকা আজও তার ঐতিহ্যকে লালন করে। শেরপুর, জামালপুর, নেত্রকোনা ও ময়মনসিংহ নিয়েই গঠিত ময়মনসিংহ বিভাগ। এ বিভাগের ইতিহাস ও ঐতিহ্যে স্বতন্ত্র একটি জেলা নেত্রকোনা। প্রাগৈতিহাসিক যুগ থেকেই বহুমাত্রিক সংস্কৃতি ধারণ করে আসছে জেলাটি।

 

বলা হয়ে থাকে দেশের বিখ্যাত ব্যক্তির জন্ম এ নেত্রকোনায়।যেমন - ১. কবি হেলাল হাফিজ ২. কবি নির্মলেন্দু গুণ ৩. হুমায়ুন আহমেদ ৪. মুহাম্মদ জাফর ইকবাল ৫. ড. আব্দুল মতিন ৬. ড. বজলুর রহমান খান ৭. বেগম রোকেয়া ৮. আয়েশা খানম ৯. মনসুর বয়াতি ১০. কর্ণেল তাহের ১১. বিচারপতি শাহাবুদ্দিন আহমেদ ইত্যাদি।

 

তবে বর্তমানে এ জেলার আরেকজন বিখ্যাত হলেন অসীম কুমার উকিল।

 

অসীম কুমার উকিল বাংলাদেশের একজন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী এবং বিখ্যাত রাজনীতিবিদ ও সমাজ সেবক।বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বুকে ধারণ করা এ ব্যক্তি ১৯৫৭ সালের ১ মার্চ ময়মনসিংহ বিভাগের নেত্রকোনা জেলায় জন্মগ্রহণ করেন।

 

বর্তমানে তিনি নেত্রকোনা -৩ আসনের সংসদ সদস্য। তিনি ২০১৮ সালে প্রথমবারের মত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

 

 

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ছাত্র শাখা, ছাত্রলীগের রাজনীতি দিয়ে অসীম কুমার উকিলের উত্থান। বর্তমানে তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক। পূর্বে তিনি বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এবং আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক ছিলেন। তার স্ত্রী অপু উকিলও সাবেক সংসদ সদস্য এবং বাংলাদেশ যুব মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছেন।

 

অসীম কুমার উকিল সবসময় সৎ কাজে নিজেকে নিয়োজিত রাখেন।তাঁর চিন্তা চেতনা মানব কল্যাণ ও মানব সেবা নিয়েই। তিনি সংসদ সদস্য হওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত তাঁর এলাকায় বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ করে গেছেন এবং এখনো করে যাচ্ছেন।এলাকার রাস্তা ঠিক করা, পারাপারের জন্য সাঁকো  ও সেতু নির্মাণসহ অগণিত কাজ করে গেছেন তিনি। এছাড়াও করোনাকালীন সময়েও তিনি থেমে ছিলেন না। ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন অসহায় মানুষের পাশে। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে তিনি থেমে ছিলেননা তাঁর মানবসেবা থেকে।

 

তাঁর গ্রামের মানুষ তাঁর মত একজন সমাজসেবক পেয়ে গর্বিত। তারা সবসময় এ রকম একজন নেতাকে পাশে চায় সবসময়।

 

কেন্দুয়া উপজেলা সদরের ক্রীড়াব্যক্তিত্ব আশরাফ উদ্দিন ভূঁইয়া বলেন, স্বাধীনতার পর প্রথম আমরা আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বে থাকা সুপরিচিত একজন যোগ্য নেতাকে এমপি হিসেবে পেয়েছি।

 

নাট্যব্যক্তিত্ব রাখাল বিশ্বাস মনে করেন, কেন্দুয়া ও আটপাড়া উপজেলার মানুষ অসীম কুমার উকিলের মতো এমন একজনকে এমপি হিসেবে পেয়েছে যার সুপরিচিতি রয়েছে সর্বত্র। তিনি তাঁর নিজ এলাকার পাশাপাশি দেশসেবায়ও ভূমিকা রাখতে পারবেন।

 

 

এ ব্যাপারে এমপি অসীম কুমার উকিল বলেন মৃত্যুর আগ পর্যন্ত মানব সেবা করে যেতে চাই।বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বুকে লালন করে দেশ নেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে সামনে এগিয়ে যাওয়ায় আমার শেষ স্পৃহা।